মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০৯:১৩ পূর্বাহ্ন

আমতলীতে শিক্ষকের বাড়িতে ডাকাতি 

সাইফুল্লাহ নাসির
  • আপডেট টাইম সোমবার, ১ আগস্ট, ২০২২

বরগুনার আমতলীতে পরিবারের সকলকে বেঁধে মারধর শেষে ঘরে থাকা নগদ ১০ লাখ ৩০ হাজার টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার ডাকাতি করে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার আমতলী থানার অফিসার ইনচার্জ এ কে এম মিজানুর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এরআগে রোববার গভীর রাতে উপজেলার পশ্চিম চিলা গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক আব্দুল কাদের খাঁনের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

জানাগেছে, আব্দুল কাদের খাঁনের বাড়ির গ্রিল কেটে সাত থেকে আটজনের ডাকাতদল ঘরে প্রবেশ করে। পরে বৃদ্ধ আব্দুল কাদের খাঁন ও তার স্ত্রী রুবি বেগমকে বেঁধে ফেলে। তাদের চিৎকারে ছেলে ইলিয়াস খাঁন তার কক্ষ থেকে বের হওয়া মাত্রই ডাকাতরা তার মাথায় ধারালো অস্ত্র নিয়ে আঘাত কারেন এবং মারধর করেন। পরে তাকেও বেঁধে ঘরের আলমারি ও সুটকেজে থাকা নগদ ১০ লাখ ৩০ হাজার টাকা ও সাত ভরি স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে যায়। খবর পেয়ে স্বজনরা ওই রাতেই গুরুতর আহত ইলিয়াসকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

আহত ইলিয়াস খাঁন বলেন, ‘বাবা-মায়ের চিৎকার শুনে রুম থেকে বের হওয়া মাত্রই মুখোশধারী ডাকাত দলের মধ্য থেকে একজন আমার মাথায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে। পরে আমাকে বেঁধে ঘরের মেঝে শুইয়ে রাখে এবং আমার শিশু সন্তানকে হত্যার হুমকি দিয়ে কোথায় টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার রেখেছি তা জানতে চায়।’

তিনি আরো বলেন, ‘তারা রুমে থাকা সুকেজ ভেঙে নগদ সাত লাখ ৮০ হাজার টাকা, বাবার আলমারি ভেঙে দুই লাখ ৫০ হাজার টাকা এবং সাত ভরি স্বর্ণালঙ্কার লুট করে নিয়ে গেছে। ডাকাতদল আমার বৃদ্ধ বাবা ও মাকে মারধর করেছে।’

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার ডাঃ মিনহাজুর রহমান বলেন, আহত ইলিয়াসের মাথায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তাকে যথাযথ চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

আমতলী থানার অফিসার ইনচার্জ এ কে এম মিজানুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তদন্ত সাপেক্ষে ঘটনার সাথে জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর
© All rights reserved © Matrijagat TV
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
matv2425802581